শনিবার, ২০ অগাস্ট ২০২২, ১১:২০ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
কমলনগরে ইউপি চেয়ারম্যানের পিটুনিতে যুবলীগ নেতা হাসপাতালে আশুলিয়ায় চাকরির নামে প্রতারণা, র‍্যাবের জালে দুই প্রতারক আটক টঙ্গীবাড়ীতে দুর্গম চরাঞ্চলে শোক দিবস পালিত মেঘনা তীররক্ষা বাঁধের ৩১শ কোটি টাকার প্রকল্পটি ক্যাটাগরি সি হবে না : লক্ষ্মীপুর মেজর (অব:) মান্নান। এ শোক হোক শক্তির আধার পদ্মা নদীতে নৌ-পুলিশের অভিযানে অস্ত্রসহ ৫ ডাকাত গ্রেফতার ‘নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে ‘ গুচ্ছের বি – ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত কমলনগরে চিকিৎসকের বদলি প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন। জালানি তেল ও সারের মূল্যবৃদ্ধিতে বাড়তি খরচে দুশ্চিন্তায় কৃষক। জাককানইবি’তে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব- এর ৯২তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন দৌলতপুরে শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিব এর জন্ম বার্ষিকী পালিত নবীগঞ্জ মডেল প্রেসক্লাবের সাধারন সভা অনুষ্ঠিত কমলনগরে বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ শেখ কামাল এর ৭৩তম জন্মবার্ষিকী পালন। বাংলা ভাষা ও সাহিত্য বিভাগের আয়োজিত হল সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান বেলকুচি শাখার ইসলামী ব্যাংকের দূর্নীতি,ব্যাংক কর্মকর্তাদের দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ আশুলিয়ার আলী নূর হত্যাকারীকে নারায়ণগঞ্জ থেকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-৪ কমলনগরের যাত্রী ছাউনি গুলো এখন ব্যাবসায়ীদের দখলে । আশুলিয়ায় স্বামীকে জবাই করে স্ত্রী পলাতক সাভার থেকে সাত বছরের হত্যা মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার গাজীপুরে স্বেচ্ছাসেবক দলের বিক্ষোভ মিছিল

সামা‌জিক নিরাপত্তা কর্মসূ‌চি বাড়‌ছে

নিজস্ব প্রতিনিধি
  • Update Time : সোমবার, ১৫ নভেম্বর, ২০২১
  • ২১৫ পাঠক সংখ্যা

নিজস্ব প্রতি‌বেদকঃ

সরকারের সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি দারিদ্র্য হ্রাসে ভূমিকা রাখছে, এতে কোনো সংশয় নেই। রোববার দৈ‌নিক ভো‌রের খব‌রে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, নানা ধরনের অনিয়ম-অস্বচ্ছতার বিরূপ প্রভাব পড়েছে সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচিতে। গত অর্থবছরে এ ধরনের কর্মসূচির ৩৪১ কোটি টাকা বিতরণ সম্ভব হয়নি। এতে দুস্থদের চলমান প্রশিক্ষণ, জীবন মানোন্নয়ন ও পুনর্বাসন কার্যক্রমে প্রতিবন্ধতা সৃষ্টি হবে, এটাই স্বাভাবিক। বস্তুত, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় দুস্থ মানুষের মধ্যে বিভিন্ন ভাতা বিতরণের স্বচ্ছতা নিয়ে অনেক আগে থেকেই অভিযোগ ছিল। কাজেই এ ক্ষেত্রে দুর্নীতি ও অনিয়মের বিরুদ্ধে কর্তৃপক্ষ কতটা কঠোর ছিল এটা এক প্রশ্ন। ইতোমধ্যে ৮৭ হাজার ভুয়া ও নিরুদ্দেশ ভাতাভোগী চিহ্নিত হওয়ার তথ্য থেকেই স্পষ্ট, এ প্রকল্পে অনিয়ম কতটা বিস্তার লাভ করেছিল। কথা হলো, অনিয়ম চিহ্নিত করাই কি যথেষ্ট? এই দুর্নীতি ও অনিয়মের সঙ্গে যারা জড়িত, তাদের বিরুদ্ধে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নেওয়া না হলে অন্যান্য প্রকল্পেও এর প্রভাব পড়তে পারে।

বস্তুত, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির অনিয়মের বিষয়টি বহুল আলোচিত। জাতীয় সামাজিক নিরাপত্তা কৌশলের (এনএসএসএস) মধ্যবর্তী উন্নয়ন পর্যবেক্ষণ প্রতিবেদনে বলা হয়, যোগ্য না হয়েও ভাতা নিচ্ছেন ৪৬ শতাংশ। আর বয়স্ক ভাতায় শর্ত পূরণ করেননি ৫৯ শতাংশ। বিধবা ও স্বামী নিগৃহীতা ভাতায় অনিয়ম ধরা পড়েছে ২৩ শতাংশ। ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) এক গবেষণায় বলা হয়, সমাজসেবা কার্যালয়ের তথ্যভাণ্ডারে নাম অন্তর্ভুক্ত করার ক্ষেত্রে ১০০ থেকে ২০০ টাকা ঘুস দিতে হয় উপকারভোগীদের। এমনকি অতিদরিদ্র প্রতিবন্ধী ব্যক্তির কাছ থেকেও ৪০০ থেকে ৫০০ টাকা ঘুস নেওয়া হয়েছে। ইউনিয়ন পর্যায়ে অনেক জনপ্রতিনিধির বিরুদ্ধে সুবর্ণ কার্ডের জন্য এক থেকে তিন হাজার টাকা পর্যন্ত অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের অভিযোগ রয়েছে। এসব অনিয়মের সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে দ্রুত তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যস্থা নেওয়া জরুরি।

এক সমীক্ষায় বলা হয়, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করা গেলে দেশে দরিদ্রতার হার কমবে ১২ শতাংশ। বস্তুত, এ কর্মসূচির অর্থ সঠিকভাবে বাস্তবায়িত হলে বহু মানুষ দারিদ্র্যের বৃত্ত থেকে বেরিয়ে এসে বেশি সক্ষমতা নিয়ে উৎপাদনমুখী কর্মকাণ্ডে যুক্ত হতে পারবে, যা দেশের অর্থনীতির চাকাকে আরও গতিশীল করবে। মহামারির কারণে দরিদ্র ও অতিদরিদ্র মানুষ কতটা ক্ষতির শিকার তা বহুল আলোচিত। এ প্রেক্ষাপটে সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির পরিধি আরও বাড়ানো জরুরি হয়ে পড়েছে। এখন ডিজিটাল পদ্ধতিতে ত্রুটি-বিচ্যুতি দ্রুত শনাক্ত করা সম্ভব। কাজেই প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে এ প্রকল্পের স্বচ্ছতা নিশ্চিত করার পাশাপাশি কর্মসূচির উপকারভোগীদের প্রাপ্ত অর্থের পরিমাণ বাড়ানো দরকার।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
© All rights reserved © 2020 Daily Vorer Khabor
Design & Develop BY Coder Boss
themesba-lates1749691102